• শুক্রবার ১৬ই এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ ৩রা বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

    শিরোনাম


    দীর্ঘদিন পর জমে উঠছে গোবিন্দগঞ্জের পাইকারী পানের বাজার

    গাইবান্ধা প্রতিনিধি | ১০ মার্চ ২০২১ | ১২:১১ অপরাহ্ণ

    দীর্ঘদিন পর জমে উঠছে গোবিন্দগঞ্জের পাইকারী পানের বাজার

    বাংলাদেশে পান খাওয়ার রীতি বেশ পুরনো। তাছাড়া সনাতন ধর্মে বিভিন্ন পূজায় পান পাতার ব্যবহার রয়েছে। খালি পানের স্বাদ ভাল না-হলেও চুন সুপারি দিলে ব্যাপারটাই জমে ‌যায়।এ পানের উপর টিকে আছে দেশের বিভিন্ন প্রান্তে ক্ষুদ্র ব্যাবসা প্রতিষ্ঠান।

     


    এতে দেশব্যাপী পান পাতার চাহিদা রয়েছে।পানের ব্যাপক চাহিদা থাকায় দেশের বিভিন্ন প্রান্তের প্রত্যন্ত অঞ্চলগুলোতে পানের চাষ হয়ে থাকে।তেমনিভাবে গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলাসহ প্রত্যেক উপজেলাতেই কম বেশি পানের চাষ হয়।

     


    গোবিন্দগঞ্জ উপজেলা ও পাশ্ববর্তী পলাশবাড়ী উপজেলার পানচাষী পান বিক্রির জন্য নির্ভরযোগ্য বাজার ছিলো গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার কোমরপুর পান হাট।এ হাটে পাইকারিতে পান বিক্রি হতো।একসময় দূর দূরান্ত থেকে ক্রেতা আসতো এ বাজার হতে পান কেনার জন্য। দেশের বিভিন্ন প্রান্তে এ বাজার হতে পান রপ্তানি হতো।তবে বিভিন্ন কারনে এ বাজারটি ভেঙে যায়,দীর্ঘদিন ধরে বাজারটি বন্ধ ছিলো।

     


    তবে এ বাজারের নতুন ইজারাদার সেলিম মিয়াসহ সংশ্লিষ্টরা ঐতিহ্যবাহী পান বাজারটির পুরনো ঐতিহ্য ফিরে আনার উদ্যেগগ্রহণ করছেন।তাদের চেষ্টায় এরই মধ্যে দীর্ঘদিনের বন্ধ্যাত্ব ঘুচে ফের জমে উঠতে শুরু করেছে ঐতিহ্যবাহী এ পাইকারি পানের হাটটি।বিক্রেতারা গাঁদায় গাঁদায় পান নিয়ে বিক্রির জন্য এ হাটে আসছে।

     

    রবিবার ব্যাতীত সপ্তাহের প্রতিদিন সকাল ৬টা হতে রংপুর-বগুড়া মহাসড়কের পাশে কোমরপুর বাজারস্থ ইক্ষু ক্রয় কেন্দ্রের পাশেই এ বাজারটি বসানো হচ্ছে।নতুন রূপে বাজার বসানোর ফলে গত কয়েকদিনে ক্রেতা বিক্রেতার সমাগমে বেশ জমজমাট হয়ে ওঠছে পান হাট/বাজারটি।

     

    একাধিক পানচাষী ও ব্যাবসায়ীর সাথে কথা হলে তারা জানান পূর্ব ইজারাদার ও সংশ্লিষ্টদের গাফিলতি,সেচ্ছাচারিতা ও ব্যাবসায়িক পরিবেশ বিঘ্ন থাকায় গত কয়েক বছর আগে হাটটি ভেঙ্গে যায়।তারা নতুনকরে হাটটি চালু করায় নতুন ইজারাদারসহ সংশ্লিষ্টদের সাধুবাদ জানিয়েছে।

     

    এ বিষয়ে ইজারাদার সেলিম মিয়া বুধবার(১০ই মার্চ) “গাইবান্ধার ডাক”কে জানান,গোবিন্দগঞ্জের স্থানীয় ও পাশ্ববর্তী এলাকার পান চাষী ও ব্যবসায়ীদের সুবিধার্থে পুরনো ঐতিহ্য ধরে রাখতে নতুন ভাবে পুনরায় এ পান হাট/বাজারটি বসানো হয়েছে।এ হাটে ক্রেতা বিক্রেতাদের বিভিন্ন সুযোগ সুবিধা ও সার্বিক সহযোগিতা করা হচ্ছে।তিনি বলেন আগামী বৈশাখ মাস পর্যন্ত ক্রেতাদের নিকট কোন প্রকার জমা বা খাজনা নেওয়া হবে না।

    Facebook Comments

    বাংলাদেশ সময়: ১২:১১ অপরাহ্ণ | বুধবার, ১০ মার্চ ২০২১

    seradesh.com |

    advertisement

    এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

    advertisement
    শনিরবিসোমমঙ্গলবুধবৃহশুক্র
     
    ১০১১১২১৩১৪১৫১৬
    ১৭১৮১৯২০২১২২২৩
    ২৪২৫২৬২৭২৮২৯৩০
    advertisement

    সম্পাদক মন্ডলীর সভাপতি : সাদেকুল ইসলাম | সম্পাদক : আবু সাঈদ

    ঢাকা অফিসঃ বাড়ি #৫ (১ম তলা) রোড #০ কল্যাণপুর, ঢাকা-১২০৭, অফিস ঢাকা রোড সান্তাহার ৫৮৯১
    ফোন : 01767 938324 (মফস্বল) 01830 359796 (সম্পাদক) | E-mail : seradeshmoff@gmail.com, news@seradesh.com

    ©- 2021 seradesh.com কর্তৃক সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত।